ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট পাগল, মানসিক চিকিৎসা প্রয়োজন: এরদোগান

Macron-Erdogan.gif

ডেস্ক নিউজ

ইসলামের প্রতি কঠোর বৈরি আচরণ করা ও ইসলামফোবিয়ায় ভোগা “এমানুয়েল ম্যাক্রোঁ পাগল হয়ে গেছেন, তার মানসিক চিকিৎসা প্রয়োজন” বলে মন্তব্য করেছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগান।

“ইসলাম ও মুসলমানদের নিয়ে ম্যাক্রোঁর এতো সমস্যা কী?” প্রশ্ন রেখে এরদোগান বলেন – এই মুহুর্তে তাঁর মানসিক চিকিতসা দরকার নয়ত তিনি মানবতার আরও ক্ষতি করে বসবেন।

আজ শনিবার “কেন্দ্রীয় কায়সারী প্রদেশের ক্ষমতাসীন জাস্টিস অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট পার্টির (একে পার্টি) এক মিটিংয়ে তিনি এসব কথা বলেছেন।

এরদোগান আরও বলেন – “এমন একজন উগ্র রাষ্ট্রপ্রধানকে কী বলা যেতে পারে যে তার দেশের ধর্মীয় সংখ্যালঘু লক্ষ লক্ষ সদস্যদের প্রতি এভাবে বৈরি আচরণ করে? এমন ব্যক্তির সবার আগে মানসিক পরীক্ষা করা দরকার।

প্রসঙ্গত : ফ্রান্সের উগ্র ও ইসলামবিদ্ধেষী প্রেসিডেন্ট ম্যাক্রোঁ সম্প্রতি ইসলামকে একটি “সমস্যাযুক্ত ধর্ম” বলে সম্বোধন করার পরে মুসলিম সম্প্রদায়ের বিরুদ্ধে এক বিদ্ধেষযুদ্ধেে সূচনা করেছিল। গত দু’সপ্তাহে ফ্রান্সে অনেক বেসরকারী সংস্থা ও মসজিদ বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

এছাড়া বার্লিনের একটি মসজিদে সাম্প্রতিক পুলিশি হামলার ঘটনায় জার্মানি পুলিশকে “ফ্যাসিবাদ” বলেও অভিযোগ করেছেন এরদোয়ান।

“ইউরোপীয় ফ্যাসিবাদ তাদের নিজস্ব নাগরিকদের উপর এই ধরনের আক্রমণ করে একটি নতুন স্তরে পৌঁছেছে” তিনি বলেছেন।

অপরদিকে ফ্রান্সে রাষ্ট্রীয়ভাবে বিশ্ব মানবতার মুক্তির দূত হযরত মুহাম্মাদ স. এর ব্যাঙ্গাত্মক কার্টুন প্রকাশ করা হচ্ছে। যা স্পষ্টত বিশ্ব মুসলমানদের সাথে ধৃষ্টতা। এর প্রতিবাদে ক্ষোভে ফেটে পড়ছে মুসলিম বিশ্ব।

আপনার মন্তব্য লিখুন
Top