শিশু সাদিয়া সুলতানাকে বেধড়ক পেটালো তার মায়ের মামলার আসামীরা

received_769644240071686.jpeg

নিজস্ব প্রতিবেদক:

মানবাধিকার কর্মী রোজিনা আক্তারকে কিছু করতে না পেরে তার শিশু সন্তানকে গায়েব করে দুপুর থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত বেধড়ক পিটিয়েছে রোজিনা আক্তারের মামলার আসামী সাজেদা বেগম সহ তার সহযোগীরা। জানা যায়, মানবাধিকার কর্মী রোজিনা আক্তারের সাথে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে তার শিশু কন্যা সাদিয়া সুলতানা নুরী( ৯) কে গায়েব করে বেধড়ক মারধর করেছে মায়ের মামলার আসামী সাজেদা বেগম ও তার সহযোগী। সাদিয়া সুলতানা নুরী কক্সন মাল্টিমিডিয়া স্কুলের ৪র্থ শ্রেণীর ছাত্রী। গঠনাটি ঘটেছে শুক্রবার দুপুরে শহরের পূর্ব কুতুবদিয়া পাড়া এলাকায়।

জানা যায় শুক্রবার দুপুর থেকে থেকে পূর্ব কুতুবদিয়া দিয়া পাড়া এলাকার মানবাধিকার কর্মী রোজিনা আক্তার এর কন্যা সাদিয়া সুলতানা নারীকে পাওয়া যাচ্ছিলো না, সাদিয়ার মা রোজিনা ও তার বাবা ইলিয়াস অনেক খোজাখোজির পর সন্ধ্যা সাতটার দিকে ঘরের দুইশত মিটার দুরে মেয়ে সাদিয়াকে আহত অবস্থায় পাওয়া যায়।

পরবর্তীতে সাদিয়াকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।
অবস্থা আশংকাজনক না হলেও শিশু সাদিয়াকে বেধড়ক পিটিয়েছে বলে জানান।

এদিকে সাদিয়ার বাবা ইলিয়াস বলেন আমার স্ত্রী রোজিনা আক্তার এর উপর প্রতিশোধ নিতে না পেরে সাজেদা বেগম, হোসন বৈদ্য ইয়াবা রফিক সহ তাদের সহযোগীরা আমার মেয়েকে গায়েব করে মেরে ফেলতে চেয়েছিল। তবে আল্লাহর রহমত আমার মেয়ে জানে বেঁচে আছে।
এদিকে রোজিনা আক্তার জানান আমার মেয়ে দুপুর থেকে নিখোঁজ থাকায় আমরা বেশ চিন্তায় ছিলাম, আমরা কল্পনাও করতে পারি নাই এই সাজেদা বেগম, হোসন বৈদ্য, ইয়াবা রফিক, আমার উপর প্রতিশোধ নিতে আমার মেয়ের উপর হামলা করবে।

আমি এর বিচার দাবি করছি।
উল্লেখ্য কিছুদিন আগে সাদিয়ার মা রোজিনা আক্তারকে জানে মারতে তার বাড়িতে আক্রমন করে সর্বশেষ গত ১৭ ফ্রেরুয়ারী পূর্ব কুতুবদিয়া পাড়া রোজিনাকে আবারো আক্রমন করে পরবর্তীতে সাজেদা বেগম, হোসন বৈদ্য, ইয়াবা রফিক সহ তাদের সহযোগিদের বিরুদ্ধে কক্সবাজার সদর থানায় মামলা দায়ের হয় যার মামলা নং ৭৮/১৯৭। শিশু সাদিয়ার মা রোজিনা আক্তার আরো জানান আমাকে মারতে না পেরে আমার শিশু কন্যাকে গায়েব করে যে নির্যাতন করেছে আমি তাদের শাস্তি দাবি করছি।
এ ব্যাপারে কক্সবাজার সদর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এর সাথে কথা হলে তিনি জানান এ ব্যপারে এখনো কোন অভিযোগ দায়ের হয়নি, অভিযোগ দায়ের হলে আমরা আইনি প্রক্রিয়া শুরু করবো।

আপনার মন্তব্য লিখুন
Top