কক্সবাজার হাশেমিয়ার বার্ষিক ক্রীড়ার পুরস্কার বিতরণীতে প্রফেসর ড. আহসান উল্লাহ

মাদরাসা শিক্ষার্থীদের আরবি চর্চায় জোর দিতে হবে

-5.jpg

নিজস্ব প্রতিবেদক:
মাদরাসা শিক্ষার্থীদের আরবি ভাষার চর্চায় জোর দিতে হবে বলে জানিয়েছেন ইসলামি আরবি বিশ^বিদ্যালয়ের উপাচার্য (ভিসি) প্রফেসর ড. আহসান উল্লাহ। তিনি বলেন, প্রতিযোগিতার বিশ্বের টিকে থাকতে শুধু আরবী ভাষা নয়, অন্যান্য ভাষায়ও দক্ষতা বাড়াতে হবে। আরো বেশি করে পড়াশোনা করতে হবে।
শনিবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) কক্সবাজার হাশেমিয়া কামিল (মাস্টার্স) মাদ্রাসার বার্ষিক ক্রীড়া, সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে ড. আহসান উল্লাহ প্রধান অতিথির বক্তৃতা করেন।
প্রধান অতিথি তাঁর বক্তব্যে যুগের সাথে তাল মিলিয়ে মাদ্রাসা শিক্ষার্থীদের আধুনিক জ্ঞনে সমৃদ্ধি অর্জনের জন্য উদ্বুদ্ধ করে নানা উদাহরণ তোলে ধরেন। সাথে সাথে মাদ্রাসা শিক্ষার্থীদের কুরআন হাদিসের মৌলিক জ্ঞান অর্জনের পাশাপশি আরবি ভাষা চর্চায় আরো জোর দিতে হবে বলে অভিমত ব্যক্ত করেন। ড. আহসান উল্লাহ বক্তব্যের শেষের দিকে ‘দুটি জিনিস’ শীর্ষক স্বরচিত কবিতা আবৃত্তি করে শিক্ষার্থীদের অনুপ্রাণিত করেন।
মাদ্রাসার অধ্যক্ষ (ভারপ্রাপ্ত) মাওলানা এম আজিজুল হক এর সভাপতিত্বে সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন মাদ্রাসা গভর্ণিং বডির সভাপতি আলহাজ¦ মাওলানা আনোয়ারুল হাদী।
অনুষ্ঠানের শুরুতে প্রফেসর ড. আহসান উল্লাহকে অভ্যর্থণা জ্ঞাপন করে শিক্ষার্থীদের পক্ষে বক্তব্য রাখেন সাকিবুর রহমান, উসামা নোমান ও জামাল উদ্দিন।
ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের প্রভাষক মাওলানা মিরছাদুল আবরার চৌধুরীর উপস্থাপনায় সভায় মুহাদ্দিস মাওলানা এনামুল হক গুরুত্বপূর্ণ আলোচনা পেশ করেন। মুহাদ্দিস মাওলানা আতাউল্লাহ মোহাম্মদ নোমান আরবি ভাষায় স্বরচিত কসীদা পাঠ করেন। উদ্বোধনী বক্তব্যে অধ্যক্ষ (ভারপ্রাপ্ত) মাওলানা এম আজিজুল হক শিক্ষার্থীদের জ্ঞান চর্চার পাশাপাশি ক্রীড়া ও সংস্কৃতিতেও এগিয়ে আসার আহবান জানান। সভা শেষে প্রধান অতিথি প্রফেসর ড. আহসান উল্লাহ অন্যান্য অতিথি ও শিক্ষকদের সাথে নিয়ে মাদ্রাসার বার্ষিক ক্রীড়া, সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করেন।

আপনার মন্তব্য লিখুন
Top