জানাযা ও দাফনে চিরবিদায় আবু হেনা বাচ্চু মিয়ার

IMG_20190111_203534.png

প্রবীণ সমাজকর্মী, কক্সবাজার শহরের এবিসি ঘোনার আবু হেনা সিদ্দিকী বাচ্চু মিয়ার নামাজে জানাযা শুক্রবার জুমার নামাজের পর শহরের হাশেমিয়া কামিল মাদ্রাসা মাঠে অনুষ্ঠিত হয়েছে। জানাযায় কক্সবাজার কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের খতিব ও মরহুমের চাচা আল্লামা মাওলানা মাহমুদুল হক ইমামতি করেন।

জানাযার নামাজের আগে মরহুমের মেঝো ছেলে ব্যারিস্টার আবুল আলা ছিদ্দিকী ও ভ্রাতুষ্পুত্র এডভোকেট মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানী মুসল্লিদের উদ্দ্যেশে বক্তৃতা করেন।

জানাযায় রাজনীতিবিদ, আইনজীবী, শিক্ষক, বিভিন্ন পেশাজীবী, সাধারণ লোকজনসহ প্রচুর মুসল্লি অংশ নেন।

জানাযা শেষে শহরের এবিসি ঘোনা পারিবারিক কবরস্থানে মরহুমের বড় ভাই ঝিলংজা ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান মাহমুদুল হক ওসমানীর কবরের পাশে আবু হেনা সিদ্দিকী বাচ্চু মিয়াকে চিরনিদ্রায় শায়িত করা হয়।

১০ জানুয়ারি সকাল ১১টার দিকে বৃহস্পতিবার চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আবু হেনা সিদ্দিকী বাচ্চু মিয়া ইন্তেকাল করেন।

কক্সবাজার সিটি কলেজের গভর্নিং বডির সাবেক সদস্য আবু হেনা ছিদ্দিকী বাচ্চু মিয়া গুরুতর অসুস্থ হয়ে গত ৩০ ডিসেম্বর থেকে চট্টগ্রাম শহরের মেট্রোপলিটন হাসপাতালের আইসিইউ’তে লাইফ সাপোর্টে ছিলেন।

মরহুম আবু হেনা সিদ্দিকী বাচ্চু মিয়া কক্সবাজার সদর উপজেলার ঝিলংজা ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান মরহুম আবুবকর সিদ্দিকের দ্বিতীয় ছেলে, একই ইউনিয়নের আরেক সাবেক চেয়ারম্যান মরহুম মাহমুদুল হক ওসমানীর ছোট ভাই, এডভোকেট আবু হায়দার ওসমানী ও কক্সবাজার পৌরসভার সাবেক কমিশনার আবু জাফর ছিদ্দিকী ও বিশিষ্ট ব্যবসায়ী খোরশেদ আলম কোম্পানির বড় ভাই, এডভোকেট মুহাম্মদ আবু সিদ্দিক ওসমানীর মেঝো চাচা, শ্রমিক নেতা আবদুল্লাহ আল সিদ্দিকী, আন্তর্জাতিক বেসরকারি সংস্থার কর্মকর্তা ওমর ফারুক সিদ্দিকী ও বিশিষ্ট ব্যাংকার রোমেনা জাহান সিদ্দিকার গর্বিত বাবা।

তিনি শহরের এবিসি ঘোনা মসজিদে বায়তুল্লাহ কমপ্লেক্সের জমিদাতা সদস্য। তিনি বিভিন্ন শিক্ষা, সামাজিক ও ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান প্রতিষ্ঠার সাথে সক্রিয়ভাবে জড়িত ছিলেন।

আপনার মন্তব্য লিখুন
Top