উখিয়া-টেকনাফ আসনে দলীয় মনোনয়নে মেরুকরণের আভাষ

Ukhiya-Pic-1-06.11.2018.jpg

রফিক উদ্দিন বাবুল, উখিয়া | 

কক্সবাজার-৪ উখিয়া-টেকনাফ আ’লীগের দলীয় আসনে মনোনয়ন বিন্যাসে মেরুকরণের আভাষ পাওয়া যাচ্ছে। এ সরকারের শেষ মেয়াদে সারাদেশ ব্যাপী ইয়াবা নির্মূলের যে ইতিবাচক পদক্ষেপ সরকার গ্রহণ করেছে তা বাস্তবায়নে আইন প্রয়োগকারী সংস্থার চোখের ঘুম হারাম হয়ে গেছে। এতে প্রতিয়মান হয় এ আসনে দলীয় মনোনয়নে আমূল পরিবর্তন আসতে পারে এমনটাই মনে করছেন আ’লীগের নেতাকর্মী ও সাধারণ ভোটাররা।
উখিয়া-টেকনাফ আসনে আ’লীগের দলীয় মনোনয়নের ব্যাপারে মতামত জানতে চাইলে টেকনাফ উপজেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক নুরুল বশর জানান, আ’লীগ দেশের একটি বৃহত্তম দল। উপর্যুপরি ১০ বছর ক্ষমতায় অধিষ্টিত থেকে দেশের সার্বিক উন্নয়ন সহ প্রায় ১১ লাখ রোহিঙ্গাকে আশ্রয় ও মানবিক সেবা দিয়ে বিশ্বের ইতিহাসে বিরল দৃষ্টান্ত স্থাপন করতে সক্ষম হয়েছে। তিনি সে দলেরই একজন নেতা দাবী করে বলেন, দল যাকে মনোনয়ন দেবে নেতাকর্মীরা তার পক্ষেই নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নেবে। তিনি আক্ষেপ করে বলেন, উখিয়া-টেকনাফ বাসী এমন প্রার্থী আশা করে না যার কারণে দেশ ও জাতি ধ্বংসকারী মরণনেশা ইয়াবার বদনামের বোঝা নিয়ে তাদের দিন অতিবাহিত করতে হবে। তাই নেতাকর্মীদের প্রত্যাশা তরুণ প্রজন্মের একজন স্বচ্ছ দেশ প্রেমিক ও দলীয় নেতাকর্মীদের সুখে দুঃখে পাশে থাকবে এমন একজন প্রার্থীকে নেত্রী মনোনয়ন দেবেন।
বাংলাদেশ ছাত্রলীগ কক্সবাজার জেলা শাখার সহ-সভাপতি ছৈয়দ মোহাম্মদ নোমান জানান, আ’লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী যে সমস্ত নেতাকর্মী কেন্দ্রের দৌড় গোড়ায় চাতক পাখীর মতো অধীর আগ্রহ ভরে অপেক্ষা করছে তৎমধ্যে উখিয়া উপজেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক ও রাজাপালং ইউপি চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী। তার চারিত্রিক গুণাবলী ও উন্নয়নের ধারাবাহিকতায় প্রধানমন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষণ করতে সক্ষম হয়েছেন। সুতরাং তিনি মনোনয়ন পেতে পারেন। এমনটি আশা করছেন আ’লীগের স্থানীয় নেতাকর্মী ও ভোটাররা।
উখিয়া উপজেলা আ’লীগের সহ-সভাপতি ও হলদিয়াপালং ইউনিযনের সাবেক চেয়ারম্যান কামাল উদ্দিন মিন্টু জানান, এমপি বদি দলের তৃণমূলের সাংগঠনিক কার্যক্রম ধ্বংস করে ফেলেছে। জামায়াত বিএনপির নেতাকর্মীদের সাথে আতাঁত করার কারণে দলের তৃণমূলের নেতাকর্মীদের সাথে দূরত্ব বেড়েছে। তাই এ সময়ে তাকে মনোনয়ন দিলে উখিয়া-টেকনাফ আ’লীগের রাজনৈতিক অঙ্গনে অশনী সংকেতের আশংকা রয়েছে। জালিয়াপালং ইউনিয়ন আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক রুহুল আমিন চৌধুরী রাসেল তার প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে বলেন, এমপি বদির কারণে স্থানীয় আ’লীগের সাংগঠনিক কার্যক্রম অস্থিত্ব সংকটে পড়েছে। এ মুহুর্তে দলকে চাঙ্গা করতে হলে নতুন প্রজন্মের যে কাউকে মনোনয়ন দিলে তা হবে শুভবুদ্ধির উদয়।
এব্যাপারে উখিয়া-টেকনাফ আসনের মনোনয়ন প্রত্যাসী উপজেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক ও স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর কবির চৌধূরীর সাথে মুঠোফোনে আলাপ করা হলে তিনি জানান, চূড়ান্ত তালিকা এখন নেত্রীর হাতে। তবে তিনি আশ্বস্ত করে বলেন, এ আসনে তিনি মনোনয়ন পাওয়ার শতভাগ আশাবাদী।

আপনার মন্তব্য লিখুন
Top