টেকনাফে ইয়াবাসহ মাইক্রোবাস জব্দ

FB_IMG_1530818993199.jpg

হাফেজ মুহাম্মদ কাশেম, টেকনাফ
টেকনাফে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের অভিযানে ইয়াবাসহ মাইক্রোবাস জব্দ হলেও চালক ও হেলপার পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়েছে বলে জানা গেছে। এ ঘটনায় গাড়ির মালিক এবং চালককে পলাতক আসামী করে মামলা দায়ের করা হয়েছে। মাদক বিরোধী সত্বেও টেকনাফে যানবাহনযোগে এখনও ইয়াবা পাচার থামেনি।
জানা যায়, ৫ জুলাই সকাল ১০টায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর টেকনাফ সার্কেলের ইন্সপেক্টর মোশারফ হোসেন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কেয়ারী ঘাট এলাকায় অভিযান পরিচালনা করেন। এসময় কক্সবাজারগামী একটি যাত্রীবাহী মাইক্রোবাস (চট্টমেটো-চ-১১-২৭৫৩) থামানোর জন্য সিগন্যাল দিলে একটু দূরে গাড়ি থামিয়ে চালক ও হেলপার পালিয়ে যায়। গাড়িতে থাকা যাত্রীদের নামিয়ে দিয়ে তল্লাশী করে বিশেষ কায়দায় লুকানো অবস্থা হতে ১৪ হাজার পিস ইয়াবা বড়িসহ মাইক্রোবাসটি জব্দ করে। এই ঘটনায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর টেকনাফ সার্কেলের ইন্সপেক্টর মোশারফ হোসেন বাদী হয়ে গাড়ির চালক এবং মালিককে পলাতক আসামী করে একটি নিয়মিত মামলা দায়েরের পর জব্দকৃত ইয়াবা ও গাড়ি টেকনাফ মডেল থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে। মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর টেকনাফ সার্কেলের ইন্সপেক্টর মোশারফ হোসেন বলেন, ‘জব্দকৃত ইয়াবা ও মাইক্রোবাসের মুল্য ৪২ লক্ষ টাকা। তাৎক্ষণিকভাবে চালক ও মালিকের নাম পাওয়া যায়নি। তদন্তের মাধ্যমে সনাক্ত করে তাদেরকে মামলায় যুক্ত করা হবে’।

আপনার মন্তব্য লিখুন
Top