চট্টগ্রাম কর্ণফুলীতে অস্ত্রসহ ডাকাত দলের ২ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে থানা পুলিশ

20180328_233316.jpg

জে,জাহেদ চট্টগ্রাম:

২৮শে মার্চ সকাল ১০টায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কর্ণফুলী থানার সেকেন্ড অফিসার ও তার সঙ্গীয় ফোর্স অভিযান চালিয়ে বোয়ালখালী থেকে ডাকাতদের গ্রেফতার করেন।

উল্লেখ্য,গত ১৯শে মার্চ কর্ণফুলী ইছানগর এলাকার জাগির হাজীর বাড়িতে ডাকাতি সংঘঠিত ঘটনার জের ধরে আসামীদের গ্রেফতার করা হয় ।

ডাকাতদের বিরুদ্ধে পুর্বে জি,আর ৩১/১৮ইং ও জি,আর ২৭/১৮ইং সহ
অস্ত্র আইনে মামলা হয়েছে সংশ্লিষ্ট থানায়।

জানা গেছে, ইতিপুর্বে উপজেলার শিকলবাহা ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ড ও ইছানগরে ৮নং ওয়ার্ডের ডাকাতির ঘটনায় ১৪/১৫ জনের একটি অস্ত্রধারী সংঘবদ্ধ ডাকাত দল জড়িত। যারা একের পর এক টার্গেট করে ডাকাতি করে যাচ্ছে।

তথ্য উপাত্তের ভিত্তিতে কর্ণফুলী থানার ওসি সৈয়দুল মোস্তফার নির্দেশে এসআই মোহাম্মদ হোসাইন ও আলমগীর হোসেন তাদের সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে বোয়ালখালীর প্রত্যন্ত গ্রামে অভিযান পরিচালনা করে ডাকাত দলের দুই সদস্যকে গ্রেফতার করে।

গ্রেফতারকৃতরা হলো- বোয়ালখালী উপজেলার পশ্চিম চাকপুরা গ্রামের মৃত আবুল হাসেমের ছেলে আব্দুল নুর প্রকাশ আব্দুল্লাহ (৩৫) একই উপজেলার চর খিজিরপুর গ্রামের মৃত নুর বক্সের ছেলে মোঃ আইয়ুব (৩৮)।

এ সময় পুলিশ ডাকাতদের কাছ থেকে দুটি দেশীয় আগ্নেয়াস্ত্র,৪ রাউন্ড কার্তুজ,ডাকাতি করা ১ভরি স্বর্ণের চেইন, ৪টা শাড়ি,১টি সাদা লুঙ্গি এবং ভাগ ভাটোয়ারার ৩ হাজার টাকা উদ্ধার করে।

প্রসংঙ্গত, ডাকাতি ঘটনায় আরো তিনজনকে ইতিমধ্যে পুলিশ গ্রেফতার করে আদালত পাঠায়।
তাঁরা হলেন,পটিয়া কোলাগাঁও উপজেলার মফিজ প্রকাশ মনা ডাকাত,আলী হোসেন (গরু চোর) এবং শিকলবাহার খলিল।
আসামীদের স্বীকারোক্তি মতে জানা যায়,ওরা কর্ণফুলী উপজেলায় সংঘটিত দুই ডাকাতির ঘটনায় জড়িত।

কর্ণফুলী থানার ওসি সৈয়দুল মোস্তফা জানান, ডাকাত সদস্যদের আদালতে সোপর্দ করা হবে। এবং বাকি আসামীদের গ্রেফতারে পুলিশ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে ।

আপনার মন্তব্য লিখুন
Top