সাড়ে ৪ লাখ ইয়াবা ও ৯ লাখ কিয়েতসহ মিয়ানমারের ৩ নাগরিক আটক

thecmbd.com_-7.jpg

সাগর দিয়ে ইয়াবার চালান পাচারকালে কক্সবাজারের টেকনাফের সেন্টমার্টিনে বঙ্গোপসাগর এলাকা থেকে ট্রলারসহ মিয়ানমারের তিন নাগরিককে আটক করেছে বাংলাদেশ কোস্ট গার্ড। এসময় তাদের ট্রলারে তল্লাশি চালিয়ে চার লাখ ৫০ হাজার পিস ইয়াবা ও মিয়ানমারের সাড়ে ৯ লাখ কিয়েত উদ্ধার করা হয়।

রবিবার (৬ ডিসেম্বর) রাতে সেন্টমার্টিনের ছেড়াদ্বীপের ৫ নটিক্যাল মাইল দক্ষিণ এলাকায় বঙ্গোপসাগরে অভিযান চালিয়ে ইয়াবা, ট্রলার ও মিয়ানমারের মুদ্রাসহ তাদের আটক করা হয়।

সোমবার (৭ ডিসেম্বর) বিকালে বাংলাদেশ কোস্ট গার্ড টেকনাফ স্টেশনে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য নিশ্চিত করেন কোস্ট গার্ড টেকনাফ স্টেশনের কর্মকর্তা লেফটেন্যান্ট কমান্ডার আমিরুল হক। এসময় উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ কোস্ট গার্ড সেন্টমার্টিন স্টেশনের কর্মকর্তা লেফটেন্যান্ট কমান্ডার রেদোয়ান উল ইসলাম।

লেফটেন্যান্ট কমান্ডার আমিরুল হক বলেন, ‘মিয়ানমার থেকে সাগরপথে ইয়াবার একটি বড় চালান পাচার হচ্ছে, এমন গোপন সংবাদে কোস্ট গার্ড টেকনাফ ও সেন্টমাটিন স্টেশনের যৌথ টিম বঙ্গোপসাগরের সেন্টোর্টিন এলাকায় অবস্থান নেয়। এর কিছুক্ষণ পর মিয়ানমার সীমান্ত থেকে একটি কাঠের নৌকা বাংলাদেশের দিকে আসতে দেখে গতিবিধি সন্দেহজনক হলে কোস্ট গার্ড কৌশলে তাদের ধাওয়া করে। পরে ট্রলারসহ মিয়ানমারের তিন নাগরিককে আটক করা হয়।

কোস্ট গার্ড কর্মকর্তা আরও বলেন, ‘পরে কোস্ট গার্ড ট্রলারে তল্লাশিতে প্লাস্টিকের বস্তায় লুকানো চার লাখ ৫০ হাজার পিস ইয়াবা, মিয়ানমারের ৯ লাখ ৫১ হাজার কিয়েত পাওয়া যায়। আটক ব্যক্তিরা স্বীকার করেছে, দীর্ঘদিন ধরে মিয়ানমার থেকে ইয়াবার চালান সাগরপথে এভাবে পাচার করে আসছিল তারা।’

আটক মিয়ানমারের নাগরিক, উদ্ধার ইয়াবা, কিয়েত ও কাঠের নৌকা টেকনাফ মডেল থানায় হস্তান্তর করে সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা করা হয়েছে বলে জানান তিনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন