খালেদা জিয়া লাশ নিয়ে উপহাস করেছিলেন, শেখ হাসিনা পাশে দাঁড়িয়ে ছিলেন : সংসদে আশেক এমপি

mp-ashek.jpg

প্রেস বিজ্ঞপ্তি :

জাতীয় সংসদে মহেশখালী-কুতুবদিয়ার সংসদ সদস‍্য আশেক উল্লাহ রফিক বলেছেন, বেগম খালেদা জিয়া ১৯৯১ সালে প্রলয়ঙ্করী ঘূর্ণিঝড় যারা মৃত্যুবরণ করেছিলেন তাদের লাশ নিয়ে উপহাস করেছিলেন। আর বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তৎকালীন বিরোধীদলীয় নেত্রী হলেও জনগণের পাশে দাঁড়িয়েছিলেন। তিনি ঘূর্ণিঝড় হওয়ার ৪৮ ঘণ্টার মধ্যেই অসহায় মানুষের পাশে এসে দাঁড়িয়েছিল। তাই রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিয়ে তিনি মাদার অব হিউমিনিটি হননি। তিনি আগেও মানবতার পক্ষে অসংখ‍্য কাজ করেছেন। ফলে তিনি বিশ্বে অন্যতম একজন সফল প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে সক্ষম হয়েছেন। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নিয়ে আমরা বাঙালি জাতি আজ গল্প করতে পারি। তিনি আরো বলেন অচিরেই কুতুবদিয়ায় জাতীয় গ্রিড থেকে বিদ্যুৎ সরবরাহ শুরু হবে সাবমেরিন ক্যাবলের মাধ্যমে। এছাড়া মহেশখালীতে প্রায় শতভাগ বিদ্যুতায়ন সম্পন্ন হওয়ার পথে। তিনি আরো বলেন মহেশখালীতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী অগ্রাধিকার ভিত্তিক একাধিক মেগা প্রকল্প বাস্তবায়ন হচ্ছে এতে গভীর সমুদ্রবন্দর অন্যতম। এই প্রকল্প বাস্তবায়ন হলে পুরো মহেশখালী কক্সবাজার জেলা অর্থনৈতিকভাবে সমৃদ্ধ হবে। বর্তমানে এই মেগা প্রকল্প কে ঘিরে পুরো জেলাব্যাপী উন্নয়ন কার্যক্রম চলমান রয়েছে। মহেশখালীতে ইতিমধ্যে যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়ন হয়েছে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের অবকাঠামোগত উন্নয়ন হয়েছে। তিনি গতকাল জাতীয় সংসদে মহামান্য রাষ্ট্রপতির ভাষণের উপর বক্তব্য রাখতে গিয়ে তিনি একথা বলেন। এছাড়া তিনি জাতীয় সংসদের একটি অর্থবহ গুরুত্বপূর্ণ ভাষণ দেওয়ার জন্য মহামান্য রাষ্ট্রপতিকে ধন্যবাদ জানান।

আপনার মন্তব্য লিখুন