কক্সবাজার সদর হাসপাতালে জন্মের পর চার পা তিন হাত বিশিষ্ট শিশুর মৃত্যু

download-6.jpg

দিসিএম

কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালে মহেশখালীর দম্পতির চার পা তিন হাত বিশিষ্ট এক শিশু জন্ম হয়েছে। জন্মের কয়েক ঘন্টা পর হাসপাতালেই মৃত্যু হয় শিশুটির।

আজ মঙ্গলবার (২৬ জানুয়ারি) মঙ্গলবার সকালে শিশুটির জন্ম হলেও দুপুরে হাসপাতালের আইসিওতে শিশুটির মৃত্যু হয় বলে হাসপাতাল সূত্র জানা যায়। অপরদিকে মহেশখালী উপজেলার মো. জহির ও ইসরাত জাহান দম্পতির ঘরে শিশুটির জন্ম হয়।

কক্সবাজার হাসপাতালের গাইনী বিশেষজ্ঞ ডাক্তার শিরিন আক্তার জাহান বলেন, সকালে অপারেশনের মাধ্যমে শিশুটি মায়ের পেট থেকে বের করে আনা হয়। কিন্তু আশ্চর্যজনকভাবে শিশুটির চার পা ও তিন হাত রয়েছে। অসুস্থ শিশুটিকে আইসিওতে রাখা হলেও দুপুরের দিকে শিশুটির মৃত্যু হয়।

তিনি আরও জানান, বয়সে অপরিণত হওয়ায় (মাত্র ২৮ সপ্তাহ) শিশুটিকে বাঁচানো সম্ভব হয়নি।ফলে শিশুর মাকে বাঁচাতে অপারেশনের কোন বিকল্প ছিলনা।

শিশুটির বাবা মো. জহির জানান, সোমবার তার স্ত্রীর ব্যথা শুরু হলে প্রথমে মহেশখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য চমেক হাসপাতালে রেফার করেন। কিন্তু আর্থিক অসচ্ছলতার কারণে স্ত্রীকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি করান তিনি। পরে মঙ্গলবার সকালে অস্ত্রপ্রাচারের মাধ্যমে চার পা তিন হাত বিশিষ্ট এই অপরিণত শিশুর জন্ম হয়। কিন্তু কয়েক ঘন্টার ব্যবধানে শিশুটির মৃত্যু হয়। তবে তার স্ত্রী সুস্থ আছেন বলে জানান তিনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন