চকরিয়ায় ছাত্রীকে উত্যক্ত করার অভিযোগে আটক ২

images-2-1.jpeg

আবদুল মজিদ, চকরিয়া:

চকরিয়ায় মাদরাসা ছাত্রীকে উত্যক্ত করার অভিযোগে দুই বখাটেকে আটক করেছে পুলিশ। ২২ অক্টোবর রাত ১টার দিকে উপজেলার পূর্ববড়ভেওলা ইউনিয়নের সিকদারপাড়া থেকে আটক করা হয় তাদের।

অভিযোগে জানাগেছে, পূর্ববড় ভেওলা ২নং ওয়ার্ডের পশ্চিম সিকদারপাড়া গ্রামের শওকত ওসমান বাবুলের মেয়ে নূরে জন্নাত স্থানীয় সিকদারপাড়া জয়নাল আবদীন মহিউচ্ছুন্নাহ দাখিল মাদরাসায় ৯ম শ্রেণিতে অধ্যায়নরত আছে। মাদরাসা ছাত্রী নূরে জন্নাত বাড়ি থেকে মাদরাসায় যাওয়ার পথে স্থানীয় একই এলাকার কিছু বখাটে উশৃংখল যুবক প্রতিনিয়ত উত্যক্ত করে আসছিলো। সর্বশেষ গত ১৭ অক্টোবর সাড়ে ৯টায় মাদরাসায় যাওয়ার ওই সংঘবদ্ধ বখাটে চক্র বাড়ি ও মাদরাসা চলাচল রাস্তায় গতিরোধ করে একটি সিএনজি গাড়ীতে তুলে জোর পূর্বক অপহরণ করে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে।মাদরাসা ছাত্রীর চিৎকারে স্থানীয় লোকজন ও পরিবারের সদস্যরা এগিয়ে এসে অপহরণকারী-বখাটেদের হাত থেকে তাকে উদ্ধার করে। এনিয়ে ছাত্রীর পিতা শওকত ওসমান বাবুল বাদী হয়ে গত ১৯ অক্টোবর থানায় লিখিত এজাহার দায়ের করেছে। এতে অভিযুক্ত করা হয়েছে একই এলাকার নুরুল ইসলামের পুত্র আরিফুল ইসলাম (২৫), জাকের আহমদের পুত্র এরফানুল ইসলাম (৩০), গিয়াস উদ্দিনের পুত্র জমির উদ্দিন (২২)সহ অজ্ঞাত আরো কয়েকজনকে। অভিযোগের প্রেক্ষিতে  ২২ অক্টোবর রাত অনুমানিক ১টার দিকে থানা পুলিশ ওই এলাকায় অভিযান চালিয়ে অভিযুক্ত জাকের আহমদের পুত্র এরফানুল ইসলাম ও তার সহযোগি স্থানীয় আবদু সালামের পুত্র আনছারকে গ্রেফতার করেছে।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, এসব বখাটে যুবকরা স্কুল-মাদরাসায় পড়–য়া শিক্ষার্থীদের প্রতিনিয়ত উত্যক্তসহ নানা কুপ্রস্তাব দিয়ে আসছে। তাদের কারণে অনেক শিক্ষার্থী লেখাপড়া বন্ধ করে দেওয়ার উপকৃম দেখা দিয়েছে। স্থানীয়রা প্রশাসনের কাছে এসব উশৃংখল ও বখাটেদের আইনের আওতায় আনার দাবী জানিয়েছেন।
আপনার মন্তব্য লিখুন