উন্নয়ন কাজের গুণগতমান নিশ্চিতে কঠোর নির্দেশনা রয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার

IMG_20190117_232702.png

ফায়সাল মাহমুদ:

[contact-form][contact-field label=”Name” type=”name” required=”true” /][contact-field label=”Email” type=”email” required=”true” /][contact-field label=”Website” type=”url” /][contact-field label=”Message” type=”textarea” /][/contact-form]

প্রতিটি উন্নয়ন কাজের শতভাগ গুণগতমান নিশ্চিত করতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কঠোর নির্দেশনা রয়েছে বলে জানিয়েছেন স্থানীয় সরকার বিভাগের সচিব (বাস্তবায়ন পরীবীক্ষণ ও মূল্যায়ন বিভাগ) আবুল মনসুর মো. ফয়েজউল্লাহ এনডিসি। শুধু তাই নয়, কোন প্রকল্পে অনিয়ম-দুর্ণীতির প্রমাণ মিললে জড়িতদের বিরুদ্ধে শাস্তিমুলক ব্যবস্থাও নেয়া হবে বলে জানান সচিব।বৃহস্পতিবার দুপুরে জেলা পরিষদ হলরুমে কক্সবাজার পৌরসভা এলাকায় ইউজিপি-থ্রি স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তরের তৃতীয় নগর পরিচালন ও অবকাঠামো উন্নতি করণ প্রকল্পের আওতায় ১শ’ ২৮ কোটি টাকার চলমান উন্নয়ন প্রকল্পের অগ্রগতি পরিদর্শন শেষে অনুষ্ঠিত এক মতবিনিময় সভায় তিনি এসব কথা বলেন। সচিব আরও বলেন, চলমান উন্নয়ন প্রকল্পগুলো নির্ধারিত সময় এবং নির্ধারিত অর্থের মধ্যে শেষ করতে হবে। জনগনের কাজ সন্তোষজনকভাবে শেষ করতে পারলেই জাতির পিতা ও তাঁর সুযোগ্য কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়া সম্ভব। অন্যথায় গত ১০টি বছরে প্রধানমন্ত্রীর নেয়া সব সুন্দর উন্নয়ন পরিকল্পনা ধংস হয়ে যেতে পারে।কক্সবাজার পৌরসভার মেয়র মুজিবুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় ইউজিপি-থ্রি’র প্রকল্প পরিচালক একেএম রেজাউল ইসলাম বলেন, কক্সবাজার পৌর এলাকার সড়ক, ড্রেন, কালভার্ট ও বস্তি নির্মাণসহ বিভিন্ন উন্নয়ন কর্মকান্ড বাস্তবায়নে ১২৮ কোটি টাকার উন্নয়ন কাজ চলমান রয়েছে। স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তরের তৃতীয় নগর পরিচালন ও অবকাঠামো উন্নতিকরণ প্রকল্পের অধিনে এসব উন্নয়ন কর্মকান্ড পরিচালিত হচ্ছে। সব কিছু ঠিকঠাক থাকলে আগামীতে এখানে হাজার কোটি টাকা বরাদ্ধ আসতে পারে। কারন এটি একদিন বিশ^মানের পর্যটন নগরী হবে।সভায় সভাপতির বক্তব্যে মেয়র মুজিবুর রহমান বলেন, ‘পর্যটন নগরী খ্যাত এই কক্সবাজারকে নিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অনেক স্বপ্ন এবং মহাপরিকল্পনা রয়েছে। সেইসব পরিকল্পনা বাস্তবায়নের অংশ হিসেবে নতুন দায়িত্ব নেয়ার পর বিশাল একটি বরাদ্ধ পাওয়া যাচ্ছে। এটি নিঃসন্দেহে পৌরবাসীর জন্য সু-খবর। এ জন্য বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাসহ ইউজিপি-৩ প্রকল্প সংশ্লিষ্ট সবাইকে বিশেষ ধন্যবাদ এবং কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি।’মেয়র মুজিব আরো বলেন, নির্বাচনের আগে ভোটারদের কাছে ওয়াদা দিয়েছিলাম, ‘আমি মেয়র নির্বাচিত হলে এলাকার রাস্তা-ঘাট, স্কুল-কলেজ, মাদ্রাসাসহ সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের উন্নয়ন, ড্রেনেজ সমস্যা সমাধান, জলাবদ্ধতা দুরিকরণ, যানজট নিরসন, বেদখলে থাকা পৌরসভার নিজস্ব সম্পদ উদ্ধার করাসহ কক্সবাজারকে বদলে দিবো।’ এছাড়া স্বচ্ছতা এবং জবাবদিহিতার সাথে জনগনের অংশিধারিত্বের ভিত্তিতে জনকল্যাণমূলক সব ধরণের কাজে পৌরবাসীর সহযোগিতা কামনা করেন মেয়র মুজিব। এসময় উপস্থিত কাউন্সিলরদের পক্ষে প্যানেল মেয়র-২ হেলাল উদ্দিন কবির বক্তব্য রাখেন।পৌরসভার বস্তি উন্নয়ন কর্মকর্তা শামীমা আকতারের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সভায় অন্যান্যদের মধ্যে প্যানেল মেয়র ও কাউন্সিলরগণসহ পৌরসভার সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা-কর্মচারীরা উপস্থিত ছিলেন।

আপনার মন্তব্য লিখুন